29.9 C
Rangpur City
Monday, August 15, 2022
Royalti ad

বারবার জ্ঞান হারাচ্ছেন নিখোঁজ ফায়ার ফাইটার ফরিদের মা-বাবা

-- বিজ্ঞাপন --

সীতাকুণ্ডের বিএম কনটেইনার ডিপোতে অগ্নি বিস্ফোরণের ঘটনায় আগুন নেভাতে গিয়ে নিখোঁজ ফায়ার ফাইটার ফরিদুজ্জামান ফরিদের সন্ধান মেলেনি ৩৬ ঘণ্টা পরেও। একমাত্র ছেলে নিখোঁজের খবরে ফরিদের বাবা সাইফুল ইসলাম, সন্তানের কথা মনে পড়তেই হাউমাউ করে কাঁদতে কাঁদতে বারবার মূর্ছা যাচ্ছেন মা ফুলমতি বেগম। তাদের ডাক্তারের পরামর্শে স্যালাইন দিয়ে রাখা হয়েছে। তাদের আকুতি, বুকফাটা আর্তনাদে এলাকার বাতাস ভারি হয়ে উঠেছে।

কনটেইনার ডিপোর আগুন নেভাতে গিয়ে নিখোঁজ ফায়ার ফাইটার ফরিদুজ্জামান ফরিদ। একমাত্র ছেলে সন্তানের অপেক্ষায় বাড়িতে প্রহর গুনছেন হতদরিদ্র মা-বাবা। আত্মীয়-স্বজনসহ প্রতিবেশী সবার চোখ টেলিভিশনের পর্দায় আর নিউজ পোর্টালগুলোতে। কখন মিলবে নিখোঁজ ফরিদের সন্ধান।

-- বিজ্ঞাপন --

ফরিদের বাড়ি রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলার ইমাদপুর ইউনিয়নের দক্ষিণপাড়া গ্রামে। পরিবারে দুই ভাইবোনের মধ্যে ফরিদ বড়। ছোট বোন সাবিহা আক্তার স্থানীয় একটি স্কুলে পঞ্চম শ্রেণিতে পড়ে।

ফরিদের চাচা তোতা মিয়া জানান, ছোটবেলা থেকে মেধাবী ও শান্তশিষ্ট ছিলেন ফরিদ। বাবা সাইফুল ইসলাম ভ্যান চালিয়ে অনেক কষ্ট করে একমাত্র ছেলেকে লেখাপড়া করিয়েছেন। দু বছর আগে ফরিদ ফায়ার সার্ভিসে যোগ দেন। ছেলে চাকরি করলেও তার বাবা ভ্যান চালানো বন্ধ করেননি। ইচ্ছে ছিল, ছেলে আরও একটু স্বাবলম্বী হলে ভ্যান চালানো বন্ধ করে দেবেন।

-- বিজ্ঞাপন --

সাইফুল ইসলাম জানান, ৪ জুন সন্ধ্যায় মোবাইল ফোনে ছেলের সঙ্গে শেষ কথা হয়েছে তার। ফরিদ তাকে বলেছেন, এবার কোরবানি ঈদ বাবা-মায়ের সঙ্গে করতে বাড়ি আসবেন। একটি খাসি কোরবানি দেওয়ার ইচ্ছার কথাও জানান। কিন্তু শনিবার দিবাগত রাতে সীতাকুণ্ডে ভয়াবহ আগুনের ঘটনার পর থেকে তার সন্ধান মিলছে না।

চট্টগ্রামের কনটেইনার ডিপোতে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৪৯ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। রংপুর ফায়ার সার্ভিসে যোগাযোগ করে জানা গেছে, এ ঘটনায় নয় জন ফায়ার ফাইটারের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। এখনও নিখোঁজ আছেন চার জন, তাদের মধ্যে ফরিদও আছেন।

-- বিজ্ঞাপন --

১৭ নম্বর ইমাদপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম ডানো রাতে নিখোঁজ ফরিদুজ্জামানের বাড়িতে গিয়ে খোঁজ-খবর নেন। তিনি জানান, ফরিদের মা-বাবার অবস্থা ভালো না। ছেলের জন্য কাঁদতে কাঁদতে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। পরিবারের সবাই নিখোঁজ ফরিদের সন্ধান পেতে চেষ্টা করছে। তাদের আত্মীয়ের মধ্যে দুই-তিনজন চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডের উদ্দেশে রওয়ানা হয়েছেন।

রংপুর ফায়ার সার্ভিসের সহকারী পরিচালক ফরিদ আহমেদ চৌধুরী জানিয়েছেন, সীতাকুণ্ড ফায়ার স্টেশনে কর্মরত ছিলেন ফাইটার ফরিদুজ্জামান ফরিদ। শনিবার অগ্নিকাণ্ডের পরপরই তিনি আগুন নেভাতে ঘটনাস্থলে গেছেন। এরপর থেকে তার সন্ধান মিলছে না। ফায়ার সার্ভিস তার অনুসন্ধান অব্যাহত রেখেছে। রংপুর থেকে তারাও খোঁজ খবর রাখছেন বলে জানান।

-- বিজ্ঞাপন --

Related Articles

Stay Connected

82,917FansLike
1,637FollowersFollow
501SubscribersSubscribe
-- বিজ্ঞাপন --

Latest Articles