19.8 C
Rangpur City
Tuesday, December 6, 2022

নীলফামারীতে অপহরনের পর মুক্তিপণ; গ্রেফতার কিশোর গ্যাংয়ের ৩ সদস্য

-- বিজ্ঞাপন --

অপহরণের ৭ ঘন্টার মধ্যেই অপহৃত তমাল চন্দ্র রায়(১৮) নামে এক যুবককে উদ্ধারসহ ৩ অপহরণকারীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন(র‌্যাব-১৩) নীলফামারী ক্যাম্পের অভিযানিক দল।

বৃহস্পতিবার (১৮ আগষ্ট) দুপুরে তাদের আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে প্রেরন করেছে সৈয়দপুর থানা পুলিশ।

-- বিজ্ঞাপন --

গ্রেফতারকৃতরা হলো রবিউল ইসলামের ছেলে ফিরোজ ইসলাম(১৯), ওয়াহেদ আলীর ছেলে জীবন ইসলাম(১৮) ও মৃত মনছুর আলীর ছেলে সোহেল রানা (২১)। তারা সবাই নীলফামারীর সৈয়দপুর শহরের নিয়ামতপুর বাসটার্মিনাল এলাকার বাসিন্দা। তাদের সৈয়দপুর থানায় হস্তান্তর করে র‌্যাব।

জানা যায়, দিনাজপুর জেলার খানসামা উপজেলার দুবলিয়া এলাকার রঞ্জন চন্দ্র রায়ের ছেলে তমাল চন্দ্র রায় (১৮) বুধবার সকাল দশটার দিকে সৈয়দপুর শহরে আসে। বাড়ি ফিরার পথে তাকে বাসটার্মিনালের খালেক পাম্প সংলগ্ন এলাকা থেকে কিশোর গ্যাংয়ের তিন সদস্য তাকে অপহরন করে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যায়। পরে অপহৃতরা তমাল রায়ের বাবাকে ফোন করে মুক্তিপন হিসাবে ২০হাজার টাকা দাবী করে।

-- বিজ্ঞাপন --

বিষয়টি তাৎক্ষনিক ভাবে তমাল রায়ের বাবা র‌্যাবকে অবহিত করে। এরপর কৌশল অবলম্বন করে তমাল রায়ের বাবা মুক্তিপণ্যের ২০ হাজার টাকা দিতে রাজি হন। কিশোর গ্যাং এর দেয়া ঠিকানা অনুযায়ী রাতে সৈয়দপুর-নীলফামারী বাইপাস সড়কের মদিনা জামিয়াতুল মাদরাসার সামনে র‌্যাবের সদস্যরা সাদা পোষাকে অবস্থান নেন। সেখানে তমালের বাবা মুক্তিপণের টাকা নিয়ে এলে কিশোরগ্যাং এর সদস্যরা সেই টাকা নিতে আসে। তখনি র‌্যাব অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার ও অপহৃদ তমাল রায়কে উদ্ধার করে। এ ঘটনার অভিযানে নেতৃত্ব দেন র‌্যাব-১৩ নীলফামারী সিপিসি-২ এর কমান্ডার স্কোয়াড্রন লিডার আব্দুর রাজ্জাক খান।

সৈয়দপুর থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) সাইফুল ইসলাম জানান, র‌্যাব নীলফামারী বুধবার রাতে অপহরণকারীদের থানায় হস্তান্তর করে। আজ বৃহস্পতিবার গ্রেফতারদের আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়।

-- বিজ্ঞাপন --

Related Articles

Stay Connected

82,917FansLike
1,607FollowersFollow
768SubscribersSubscribe
-- বিজ্ঞাপন --

Latest Articles